সৌদি আরবের যুবরাজ এবং কার্যত শাসক মোহাম্মদ বিন সালমান ইহুদিবাদী ইসরাইলের যুদ্ধবাজ প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর সঙ্গে একটি পরিকল্পিত বৈঠক বাতিল করেছেন। আমেরিকার রাজধানী ওয়াসিংটন ডিসিতে এই বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। পার্সটুডে।

বিন সালমান আশঙ্কা করেছিলেন যে, তার এই বৈঠকের খবর ফাঁস হয়ে যেতে পারে। এজন্য তিনি ওয়াশিংটন সফর বাতিল করেন। আগামী ৩১ আগস্ট সোমবার তার ওয়াশিংটন পৌঁছার কথা ছিল।

এ সফর উপলক্ষে গোপনস্থানে চারটি বাড়ি কেনা হয়েছে যেখানে বিন সালমান থাকবেন। তিনি আমেরিকায় নিযুক্ত রাষ্ট্রদূতের বাড়ি অথবা দূতাবাসে থাকতে চান নি কারণ এসব জায়গা বেশ পরিচিত এবং সাংবাদিক থেকে শুরু করে সবার নজর থাকে।

বিন সালমানের উপদেষ্টা হিসাব করে দেখেছেন যে, মার্কিন কংগ্রেসে সালমানের বিরোধী ডেমোক্র্যাট দলের আইন প্রণেতাদে রহাতে এত সময় নেই যে, তারা সৌদি আরবের নিহত সাংবাদিক জামাল খাশোগি হত্যাকাণ্ডের বিষয়টি প্রচারণায় আনবেন না। কিন্তু তারপরেও যুবরাজ তার সফর বাতিল করে করেছেন। তার আগে তিনি তার পরিকল্পিত বৈঠকের কথা ফাঁস হয়েছে বলে জানতে পেরেছেন।